নিজের নয়, স্ত্রীর রিটার্ন দাখিল; তবুও মনোনয়ন বৈধ

36
নির্বাচন কমিশন

একাদশ সংসদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ মনোনয়ন প্রাথী মো: ফরিদুল হক খান নিজের আয়কর রিটার্ন দাখিল না করে স্ত্রীর রিটার্ন দাখিল করেছে তবুও তা মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

ঐ আসনের ভোটার মুস্তাফিজুর রহমান এই অভিযোগ করে তা বাতিল করতে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের কাছে আবেদন করেছেন।

রোববার (২ ডিসেম্বর) প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদার দপ্তরে এ আবেদন জমা দেওয়া হয়।

আবেদনে বলা হয়েছে, মো: ফরিদুল হক খান জামালপুর-২ আসন থেকে মনোনয়ন দাখিল করেছেন বা বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন থেকে প্রকাশিত পরিপত্র-৭ উল্লেখিত প্রাথীর হলফনামা তথ্য বিবরণীতে পরিপত্র-৭ এর ৬ নাম্বার কলামে আয়কর বিবরণ অনুযায়ি উক্ত ব্যাক্তি তার আয়কর বিবরন প্রকাশ বা প্রদান করেন নাই অর্থাৎ তাহার সহধমির্নী আফরোজা হক এর আয়কর প্রত্রয়ন ও আয়কর বিবরনী প্রদান করেন। যা নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের সামিল।

আরও খবর  ব্রেস্ট ক্যান্সার সচেতনতায় বিকন ওমেন্স মিনি ম্যারাথন

আওয়ামীলীগ মনোনয়ন প্রার্থী তাহার আয়কর প্রত্যয়ন পত্র ও আয়কর বিবরণী অর্থাৎ হলফনামার তথ্য বিবরণী পরিপত্র পরিপত্র-৭ এর ৬ নাম্বার কলাম আয়কর প্রত্যয়ন পত্র ও আয়কর বিবরণী প্রদান না করলেও বিগত ২ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে রিটার্নিং অফিসার আওয়ামীলীগ মনোনয়ন প্রাথী মো: ফরিদুল হক খানের মনোনয়নপত্র গ্রহনের বৈধ ঘোষনা করেন। যা সম্পূর্ণ ভাবে অবৈধ ও বেআইনি। একারণে প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল করার দাবি জানানো হয়েছে।