এমন ছবি না দেখে থাকলে এখনি দেখে নিন।

93
PICTURE : GOOGLE

১৪ টি চরম Mystery ও লৌমহর্ষক Thriller মুভি, যা না দেখে থাকলে মুভি জগতের অনেককিছুই দেখেন নি…

অনেকেই আছেন Mystery, Thriller মুভি পছন্দ করেন কিছু ভালো মুভি গুলোর নাম জানা তাই দেখা হচ্ছেনা, হ্যা তাহলে আজকের লেখা আপনার জন্যেই, চলুন দেখে নেয়া যাক কিছু লৌমহর্ষক Mystery ও Thriller মুভি।

১. Identity (2003)

বাহিরে তুমুল বৃষ্টি হচ্ছে। এ যেন শুধু বৃষ্টি নয় এক অভিশাপ কেননা এই বৃষ্টি আপনাকে কোথায় যেতে দিবেনা। রাস্তায় বিশাল গাছ পরে পানি জমে রাস্তা ব্লক। কুখ্যাত সন্ত্রাসীকে নিয়ে জেলে যেতে পাড়ছেনা ডিটেকটিভ এদিকে কারের ড্রাইভারও তাদের সাথে এক রকম জিম্মি তাকেও বিদায় দিতে পাড়ছেনা। বৃষ্টিটা বেড়েই চলেছে থামার নাম-গন্ধ নেই। এদিকে বৃষ্টির জন্য রাস্তা-বন্ধ থাকায় আটকা পড়ে এক সেলিব্রেটি নারী। সবাই সমবেত হয় একটা রোডসাইড মোটেলে, পরে ঘটে যত নাটকীয়তা মোটেলে একের পর এক খুন হতে থাকে। ডিটেকটিভ সন্ত্রাসীটাকে সন্দেহ করে কিন্তু আসলে কি সেই খুনী? একটা সময় অবশ্য সে বাথরুম থেকে পালিয়ে যায়। আপনাকে অবাক করে দিয়ে দিবে এই থ্রিলার কেননা কে খুনী আর কেনইবা খুন করছে তা আপনি একদম শেষে জানবেন।
একদম পিউর সাসপেন্স থ্রিলার।

২. Tell No One (2006) (France)

এক সদ্য বিবাহিত দম্পতি একটা লেকে যায় একান্তে কিছু সময় কাটাতে। মেয়েটা এই পানি দেখে লোভ সামলাতে না পেরে কাপড় খুলে একটা সময় নেমে যায় গোসল করতে। অনেকক্ষণ হয়ে যায় তার কোনো খবর নেই আসলে সে ওপাড়ে চলে যায় স্বামী দৌড়ে নামে কিন্তু তাকে বেইজবল ব্যাট দিয়ে কে যেন সজোড়ে অজ্ঞান করে ফেলে চলে যায়। সম্পূর্ণ ব্যাপরটা ছিল পূর্ব পরিকল্পিত কিন্তু কে বা কারা এই প্ল্যান করে?
মেয়েটার মৃত্যুর নাটক সাজিয়ে নায়কের কাছে থেকে তাকে আলাদা করা হয়। কে করে এমন কাজ? কি তার উদ্দেশ্য? বাকিটা নিজেই দেখে ফেলুন।

3. The Lives of Others (2006) (German)

Dreyman (Sebastian Koch) একজন লেখক। তার বন্ধু Jersk যে একজন ডিরেক্টর তারা নাটক পরিবেশন করে থিয়েটারে। নাটকের মূল চরিত্রে থাকে Christa নামের মেয়েটা (Dreyman এর গার্লফ্রেন্ড)। সরকার দলের মিনিষ্টার নাটক দেখতে আসে, মিনিষ্টাররাই আসলে ঠিক করে কার নাটক চলবে ডিরেক্টর কে হবে এসব। Dreyman এর বন্ধু jersk কে ব্যান করা হয় নাটক থেকে মিনিষ্টার এর সাথে Dreyman এর ৪০ তম জন্মদিন পার্টিতে এই বিষয়ে কথা বলা হয় কিন্তু সুরাহা হয় না। সেদিন পার্টিতে jersk একটা গিফট আনে Dreyman এর জন্য Sonata of a good man নামের মিউজিক এরপর কিছুদিন পর jersk সুইসাইড করে এরপর দৃশ্যপট পালটে যেতে থাকে। Lieutenant Colonel Grubitz (Dreyman এর বাল্যকালের বন্ধু) এর সহায়তায় Wiesler (East German Secret police, যে চরিত্রটি মুভিটার প্রধান আকর্ষণ) Dreyman এর বাড়িতে গোপনে অডিও, ক্যামেরা সব ফিট করে আসে আর পর্যবেক্ষণ করে ২ জন মিলে নাইট/ডে শিফটে আর এই মিশনের নাম Lazlo (হাঙ্গেরিয়ান ভাষা যা সুইসাইড সম্পর্কিত পরিসংখ্যান বুঝায়) অপারেশন। wiesler পর্যবেক্ষণ করতে করতে আর সব তথ্য নোট করতে করতে তাদের জীবনের (Dreyman & Christa) একটা অংশ হয়ে যায়।
কিন্তু সমস্যাটা বাদে Dreyman এর নতুন একটা নাটক লিখে যাতে উঠে আসে জার্মানির চাঞ্চল্যকর সুইসাইডের তথ্য এ সংখ্যা অত্যাধিক (সর্বোচ্চ হাঙ্গেরী এর পর তাদের অবস্থান) যে পরিসংখ্যান সরকার ১৯৭৭ এর পর থেকে বন্ধ করে দিয়েছে। এই তথ্য ফাঁস হলে সবকিছুই বদলে যাবে, সরকারের ১২ টা বাজবে।
বার্লিন প্রাচীর ভাঙার পূর্বেকার গল্প নিয়ে মুভিটা।
মুভিটার ইন্ডিংটা এক কথায় মুগ্ধকর।

4. The Body (El Cuepero) (2012) (Spain)

মর্গ থেকে গায়েব হয়ে যায় একটা লাশ। যেটা ছিল ধনী ও একজন সফল ব্যবসায়ী এক মহিলার লাশ।
কে এই কাজ করল? কেন করল তার উত্তর পরে জানবেন। ডিটেকটিভ বুঝতে পাড়ছেনা এত করা পাহারার মধ্যে লাশ কিভাবে গায়েব হল। মর্গের পাহারাদার পুলিসকে কি দেখে ফোন দিয়েছিলেন? কেনইবা পাহারাদার আতংকিত হয়ে পালানোর চেষ্টা করেছিল আপনি হয়ত ভাববেন এই বুঝি মুভি শেষ গুমকারী তো হাতের কাছেই আছে শুধু প্রমাণের অপেক্ষা। কিন্তু না গল্পে এমন এক মোড় নিবে টনক নড়ে যাবে আপনি বলবেন অরে শালা এই কাহিনী।

5. Amores perros (2000) (Spanish)

৩ টা ইন্টারকানেক্টেড ষ্টরি। যা আপানাকে দেখাবে ভালবাসা, মৃত্য, আর প্রতারণা। Ameros Perros মেক্সিকান শব্দ যার অর্থ হল Loves gone bad. প্রথম গল্প – Octavio, Susana, Ramiro -কে নিয়ে। Octavio, Ramiro ২ ভাই আর susana, ramiro এর বউ (তাদের একটি শিশু সন্তানও আছে) কিন্তু octavio সুসানাকে লাভ করে তারা একদিন পালিয়ে যাওয়ার প্ল্যান করে? এই প্ল্যানে লুকিয়ে রয়েছে দারুণ একাটা টুইষ্টিং গল্প) । দ্বিতীয় – Daniel & amanda, তারা স্বামী-স্ত্রী। amanda পেশায় একজন সেলিব্রেটি, তার বিলবোর্ড পুরো নগরজুড়ে। কিন্তু একদিন কার এক্সিডেন্টে তার পা ভেঙে যায়, পরে পা কেটে ফেলতে হয় নামানো হয় তার বিলবোর্ড। তার ক্যারিয়ার এর ইতি, তাদের গল্পে টুইষ্ট আনে তাদের ভালবাসার কুকুর richie. তৃতীয় – একজন পরিচ্ছন্নতা কর্মী (লুকায়িত হিটম্যান) সে যখন জেলে যায় তখন তার স্ত্রী পুনরায় বিয়ে করে আরেক লোককে। কথা ছিল সে তার মেয়ের সামনে আর আসবেনা। কিন্তু সে প্রতিদিন দূর থেকে তার মেয়েকে দেখতো।

6. Zodiac (2007)

এক সিরিয়াল কিলার একের পর এক খুন করতে থাকে এবং পুলিশ ও এক সংবাদ পত্রিকাকে এসব খুনের কথা বলতে থাকে। কিভাবে খুন করেছে, কোথায় লাশ আছে। পুলিশ শত চেষ্টা করেও তার হদিস পায় না। হয়ত দীর্ঘ ১০ বছরে এই কিলার ৩৭ জন মানুষকে খুন করেছে। এই কেসের সমাপ্তি করতে যেয়ে রিপোর্টার হয়ে যায় সংসার থেকে আলদা। ডিটেকটিভ পাগলপ্রায় হয়ে সব ছেড়ে চলে যায় নির্জন এলাকায় একা বাস করতে।
কিভাবে সব সুরাহা হয়? কে সেই বিখ্যাত Zodiac কিলার যে খুনের সাথে মেসেজ দেয় কোড দিয়ে? বাকি অংশ বুঝতে মুভিটি দেখে ফেলুন।

7. Donnie Darko (2001)

এক অস্থির রকমের টিনেজার ডনি ডার্কো। সে আবার ঘুমের মধ্যে হাটাচলা করে। প্রায় সকালেই সে সে নিজেকে বিভিন্ন জায়গায় আবিষ্কার করে। একদিন রাতের বেলা এক এলিয়েন টাইপ র‍্যাবিট তাকে ডেকে বাড়ির বাগানে নিয়ে যায়। তখন ঘটে এক দূর্ঘটনা- ডনির রুমের উপরই এক প্লেনের একটু ভাঙা অংশ পড়ে। র‍্যাবিটের করনে সে প্রাণে বেচে যায়। এই অংশ টি কোথা থেকে আসল কেউ জানে না, নিকটস্থ কোন এয়ারলাইন এমন কিছু তথ্য নেই।
র‍্যাবিট তাকে বলে যে সামনের এক নির্দিষ্ট দিনে পৃথিবী ধ্বংস হতে যাচ্ছে। একমাত্র ডনিই পারে পৃথিবীকে বাঁচাতে। নিজের প্রাণ বাচানোর জন্য ডনি র‍্যাবিটের কথা শুনে এটা সারাক্ষণ তার সাথে থাকে ইভেন সিনেমা হলের সিটের পাশেও। এই র‍্যাবিট তার লাইফে এমন এক মোড় নিয়ে আসে যা আনএক্সপেক্টেড। এই র‍্যাবিটের রহস্য কি? রহস্য আপনিই উদঘাটন করুন।

8. Stonehearst Asylum (2014)

লেখক Edward Allan Peo এর গল্প থেকে মুভিটা নেওয়া। মুভির শুরুরেই দেখবেন এক টিচার ক্লাস নিচ্ছে যেখানে আনা হয় এমন এক মানুষিক রোগীকে যে কিনা তার স্বামীর চোখ তেতলে দিয়েছে, কান কেটে ফেলেছে কামড়ে। আসলে সে ছিল হিষ্টোরিয়া রোগী তখনকার সময় এটা মানুষিক রোগ ছিল। তাকে পরে নিয়ে আসা হয় Stonehearst Asylum এ চিকিৎসার জন্য। এই মানুষিক হসপিটালের চিকিৎসা পদ্ধতি একটু আলদা।
Dr Edward একদিন আসে এই asylum এ চিকিৎসা সেবা দেওয়ার জন্য, এখানে এসে সে সবার চিকিৎসা পদ্ধতি দেখে অবাক হয়। শুধু Eliza নামের এক রোগী তার দৃষ্টি কাড়ে সে প্রেমে পরে যায় কিন্তু Eliza তাকে এখান থেকে চলে যেতে বলে, কিন্তু কেন কি সে রহস্য এখানে?
“Believe nothing that you hear & only half that you see.”
মুভিটা দেখে লাস্ট ৫ মিনিটে এসে আপনি শকড হবেন। কি তৈরি তো?

9. Shutter Island (2010)

Shutter Island মানুষিক হাসপাতালের Rachel নামের এক মহিলা রোগী পালিয়ে যায়। আর সে জন্য ২ জন মার্শাল যায় ইনভেস্টিগেশন করতে Teddy (Leonardo DeCaprio) Chuck (Mark Ruffalo)। তারা ফেরী করে এই নির্জন দ্বীপে যাচ্ছে, Chuck Teddy কে বস বলে সম্মোধন করে সবসময়। হাসপাতালটা ছিল বিশাল দেওয়ালের মাঝে কাটা তারের বেষ্টনী দিয়ে, চাইলেই কেউ পালাতে পারবেনা। কিন্তু হাসপাতালের ভেতরটা ছিল একটা মেডিকেল কলেজের মত ভেতরে ৩ টা বিল্ডিং ১ম টাতে পুরুষ রোগী ২ য় টাতে মহিলা আর ৩ য় টাতে যা আলদা রাখা হয়েছে ভয়ংকরতম মানুষিক রোগীদের। Teddy ও Chuck আসার পর বলে তারা ৩ য় বিল্ডিংটাতে যাবে কিন্তু তারা কিছুতেই সেখানে যেতে পারবেনা ৩ জন ডাক্তারের সাহায্য ছাড়া। তারা এখানেই থেকে যায়।
এদিকে Teddy এর পরিবার এক অগ্নিকান্ডে মারা যায় যার জন্য chuck সান্তনা দেয়। এই মৃত্যুর সাথেই লুকিয়ে আছে রহস্য ও সবকিছুর উত্তর।
মার্টিন সারসেসের অসাধারণ কাজ এই মুভি। It’s better to live as a monster or die a good man.

10. From Hell (2001)

Detective জনি ডেপ খুনের রহস্যর ক্লু খুঁজতে চলে যায় অন্যরকম এক দুনিয়ার। নেশা করে পিনিকে মাতাল হয়ে ঘুমিয়ে থাকে স্বপ্নে ক্লু পায় আবার পায় না! এভাবেই এগুতে থাকে…….
শহরে একের পর এক বেশ্যা খুন হচ্ছে যার কোনো রকম ক্লু নেই কে বা কারা খুন করতেছে। বুঝাই যাচ্ছে অনেক ঠাণ্ডা মাথার কাজ। খুন করে বডি পার্টগুলো ডিসেকশন করে আলাদা করে ফেলছে যেন কোনো বিশেষ একটা পার্ট সে খাবে লাইক হার্ট। জনি ডেপ এই খুনগুলো ইনভেস্টিগেইট করে…..
সে কি পারে আসল খুনি কে ধরে তার মুখোশ খুলে দিতে? দেখে নিন ভিন্নধর্মী এই থ্রিলার।

11. The Raven (2012)

এক লেখক গল্প লেখে কিন্তু অবাক বিষয় হল সে তার গল্পে যেভাবে খুনের কারণ লেখে। হুবুহু ঠিক একইভাবে শহরে একের পর এক মানুষ মারা যায়। কেউ যেন তার গল্পে এতটাই ডুকে যায় যার ফলাফল এই ভয়াবহতা। লেখক কি পারে বেড় করতে কে সেই কুখ্যাত খুনি?

12. 1408 (2007)

১৪০৮ ডলফিন হোটেলের একটা রুম, যে রুম ৩০ বছর ধরে বন্ধ। এই রুমে কেউ ১ ঘন্টার বেশী থাকতে পারেনি, মারা গেছে । প্যারানরমাল লেখককে তার এক ফ্যান খোলা চিঠিতে বলে Don’t enter 1408, সে বেপারটা ইন্টারেস্টিং ফিল করে, নতুন কোনো গল্পের ধান্ধায় চলে যায় ডলফিন হোটেলে ১৪০৮ এ।
মুভিটা কিছুটা হরর আছে বাট একটা থ্রিলার মাষ্টারপিস, আপনি হরর না দেখলে এটা এড়িয়ে যান।

13. Sleepy Hallow (1999)

ইকাবন ক্রেইন ( Jonny Depp) নামের এক লোককে পাঠানো হয় Sleepy Hollow নামক এক জায়গায় ৩ জন মাথা কাটা লোকের মৃত্যের কারন জানতে । যাদেরকে মাথাকাটা এক Horseman খুন করে, কিন্তু কেন? পরে বের হয়ে আসে চাঞ্চল্ল্যকর সব তথ্য ।
সবশেষে আপনি একটা স্বস্তির নিঃশ্বাস নিয়ে বলবেন অনেকদিন পর একটা ভাল মুভি দেখলাম ।
আবারো বলছি মুভিটার প্রধান প্লটটা লুকিয়ে আছে যা আপনি শেষ পর্যন্ত না দেখতে বুঝতে পারবেন না, আর প্রতি মুহুর্তে ভাববেন এরপর কি হবে? কে মরবে ? কিছুটা ক্রাইম থ্রিলার এর মত সাথে পাচ্ছেন Mystery, Horror.
এই মুভিটা আমার কাছে হরর লাগেনি আপনার কাছে লাগতেও পারে তাই ভীতু টাইপের হলে এড়িয়ে যান। কিন্তু আপনি একটা চরম মিষ্টিরি থ্রিলার মিস করবেন।

14. Nothing but the Truth (2008)

এক ডিরেক্টরের নতুন সিনেমাতে গল্পে থাকবে দৈনিক পত্রিকা Capital Sun Times, Washington D.C এর রিপোর্টার Rachel (Kate Beckinsale) যে কিনা এক CIA এজেন্ট Erica (Vera Fermiga) এর আইডেন্টিটি উন্মোচিত করবে। এই আইডেন্টিটি প্রকাশ হলে বিরাট ক্ষতি হয়ে যাবে। Rachel ফাইট করে Erica এর সত্য রক্ষা করতে এদিকে Erica এজেন্সিতে ও ভাল মা হিসেবে জীবনযাপন করে যা তার অহংকার। আইডেনন্টিটি রিভিল হলে কি হবে বুঝিতেই পাড়ছেন?
শেষে সত্য এমন একজন থেকে Rachel জানতে পারে যা কখনো বলা যায় না শুধু নিজের কাছে রাখতে হয়।

Credit: শরিফউল্লাহ সিয়াম