ভোলায় ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে ৫০ কোটি টাকার মানহানি মামলা

92

ভোলা প্রতিনিধিঃ নারী সাংবাদিককে কটূক্তির অভিযোগে ভোলায় সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে ৫০ কোটি টাকার মানহানির মামলা করা হয়েছে। এ মামলায় ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে জুডিসিয়ালি তদন্ত দিয়েছে ভারপ্রাপ্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে। সোমবার (২২অক্টোবর) দুপুরে ভোলা যুব মহিলা লীগ আহবায়ক খাদিজা আক্তার স্বপ্না বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।
মামলায় উল্লেখ্য করা হয়, গত ১৬ অক্টোবর একাত্তর টিভির একাত্তর জার্নাল নামে একটি টকশোতে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টিকে অবমাননা করে বক্তব্য দেন মইনুল হোসেন। যার মাধ্যমে নারীদের মর্যাদাকে হেয় করা হয়েছে। তার বক্তব্য মানহানিকর।
মামলায় ৫০ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ দাবি করা হয়েছে। আদালতের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বিচারক শরীফ মোহাম্মদ ছানাউল হক মামলাটি গ্রহণ করে ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে জুডিসিয়ালি তদন্ত দিয়েছে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত। আগামী ৩১ অক্টোবর তদন্ত করে রিপোর্ট জমা দিতে বলা হয়েছে।
উল্লেখ্য, ঢাকার মহানগর মুখ্য আদালতে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি ২০ হাজার কোটি টাকার মানহানি মামলার পর জামালপুরে জেলা যুব মহিলালীগের নেত্রী ফারজানা লিটার মামলা দায়েরের পর ৩য় মামলা বাদী হয়ে দায়ের করেন ভোলা যুব মহিলা লীগ আহবায়ক খাদিজা আক্তার স্বপ্না । খাদিজা আক্তার স্বপ্নার এই মামলায় দায়েরের ঘটনায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে ভোলা জেলায়। যে খানে প্রকৃত ভিক্টিম মাসুদা ভাট্টি বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছে সেখানে একই ঘটনার অন্য ব্যাক্তি মামলা করা হাস্যকর ছাড়া আর কিছু নয় বলে দাবি করছেন সচেতন মহল।